৬ষ্ঠ থেকে ৯ম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের এ্যাসাইনমেন্ট মূল্যায়ন নির্দেশনা ও এস্যাইনমেন্ট মনিটরিং প্রসঙ্গে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ

৬ষ্ঠ থেকে ৯ম শ্রেণির পুনর্বিন্যাসকৃত পাঠ্যসূচির আলােকে মূল্যায়ন নির্দেশনা বিষয়ে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের ওয়েব সাইটে প্রদত্ত এ্যাসাইনমেন্ট গ্রিড অনুসরণ করে ১লা নভেম্বর ২০২০ হতে ১৫ ডিসেম্বর ২০২০ পর্যন্ত শিক্ষার্থীদের এ্যাসাইনমেন্ট কার্যক্রম মনিটরিং প্রসঙ্গে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়েছে।

প্রকাশিত বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, কোভিড-১৯ মহামারির কারণে ১৮/০৩/২০২০ তারিখ থেকে সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শ্রেণি কার্যক্রম বন্ধ থাকায় এ বছরের শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যসূচিকে সংক্ষিপ্ত করে পূনর্বিন্যাস করা হয়েছে। শিক্ষার্থীরা যাতে শিখন ফল নির্ভর শিক্ষা লাভ করতে পারে সে লক্ষ্যে শ্রেণি উপযােগী এ্যাসাইনমেন্টের মাধ্যমে তাদেরকে মূল্যায়নের ব্যবস্থা করা হয়েছে। বর্ণিত নির্দেশনা পত্রের আলোকে মাঠ পর্যায়ে শিক্ষার্থীদের এ্যাসাইনমেন্ট এর কার্যক্রম যথাযথভাবে পরিচালিত হচ্ছে কি না তা এতদসঙ্গে সংযুক্ত ছক অনুযায়ী শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহ সরেজমিন মনিটরিং করা প্রয়ােজন।

সে লক্ষ্যে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের আওতাধীন মাঠ পর্যায়ের বর্ণিত কর্মকর্তাগণ তাদের আওতাধীন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহ (সংযুক্ত ছক মােতাবেক) পরিদর্শন পূর্বক ০১/১১/২০২০ তারিখ হতে ২১/১১/২০২০ তারিখ পর্যন্ত ১ম তিন সপ্তাহের পরিদর্শন প্রতিবেদন একসাথে করে আগামী ২৬/১১/২০২০ তারিখের মধ্যে এবং অনুরূপভাবে ২২ নভেম্বর ২০২০ তারিখ হতে ১৫ ডিসেম্বর ২০২০ তারিখ পর্যন্ত পরবর্তী তিন সপ্তাহের পরিদর্শন প্রতিবেদনের সফট কপি (স্ক্যান কপি) আগামী ২০/১২/২০২০ তারিখের মধ্যে মনিটরিং অ্যান্ড ইভ্যালুয়েশান উইং এর ইমেইল [email protected] এ প্রেরণ নিশ্চিত করবেন।

করোনাকালীন এস্যাইনমেন্ট মূল্যায়ন সংক্রান্ত তথ্য ছক (PDF) ডাউনলোড করুন

এমতাবস্থায় মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের আওতাধীন মাঠ পর্যায়ের সকল কর্মকর্তাগণকে উপরােল্লিখিত নির্দেশনা মােতাবেক তাঁর আওতাধীন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহ সরেজমিন পরিদর্শন পূর্বক পরিদর্শন প্রতিবেদনের সফট কপি (স্ক্যান কপি) বর্ণিত ই-মেইলে নির্ধারিত সময়ের মধ্যে প্রেরণের জন্য নির্দেশক্রমে অনুরােধ করা হয়েছে।

 

About Bangla Gov Jobs

Check Also

নেই চেয়ারম্যান ও সিনিয়র শিক্ষক, পরীক্ষা বর্জন ও আন্দোলন করছে সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগ

বশেমুরবিপ্রবি প্রতিনিধি: প্রতিটি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে হলো উচ্চশিক্ষা অর্জন করা। উচ্চশিক্ষা নিশ্চিতে সবথেকে গুরত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকগণ। তবে এক্ষেত্রে অনেকটা ব্যতিক্রম গোপালগঞ্জের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (বশেমুরবিপ্রবি)। বিশ্ববিদ্যালয়টিতে পর্যাপ্ত শিক্ষক না থাকার কারণে শিক্ষক নিয়োগের দাবিতে আন্দোলন করছে বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ শিক্ষার্থীরা। বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে জানা যায়, বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিটি বিভাগেই রয়েছে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *