উদ্বোধন হতে যাচ্ছে সেভ ইয়ুথ বাংলাদেশ-এর কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় চ্যাপ্টার

দেশের তরুণদের নিয়ে কাজ করা সংগঠন স্টুডেনন্টস এগেইন্সট ভায়োলেন্স এভ্রিহয়ার (সেভ ইয়ুথ) আগামী ০২ অক্টোবর ২০২০ তারিখে রোজ শুক্রবার কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় চ্যাপ্টারের উদ্বোধন করতে যাচ্ছে। এ উপলক্ষ্যে ওই দিন বিকাল পাঁচটা থেকে রাট নয়টা পর্যন্ত সেভ ইয়ুথ ওয়ার্কশপ-কোর অনুষ্ঠিত হবে।

অনুষ্ঠানটিতে মোট দুইটি অংশ থাকবে। প্রথম অংশে অর্ন্তজাতিক অহিংসা দিবস (মহাত্মা গান্ধীর জন্মদিন) উপলক্ষ্যে সেভ ইয়ুথ বাংলাদেশ, মাইক্রো গর্ভানেন্স রিসার্চ ইনিসিয়েটিভ, ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদ যৌথভাবে আয়োজন করতে যাচ্ছে বিশেষ এই আলোচনা অনুষ্ঠানটি। আলোচনার বিষয়বস্তু দৈনন্দিন সহিংসতা এবং শান্তিরক্ষা।

উক্ত আলোচনা অনুষ্ঠানে আলোচক হিসেবে উপস্থিত থাকবেন ড. উর্মিথাপা দত্ত, সহযোগী অধ্যাপক, মনোবিজ্ঞান বিভাগ, ইউনির্ভাসিটি অব ম্যাসাচুসেটস লোভিল, ইউএসএ, এবং ভাসু মোহন, আঞ্চলিক পরিচালক, এশিয়া প্যাসিফিক, দ্যা ইন্টারন্যাশনাল ফাউন্ডেশন ফর ইলেকট্রল সিস্টেমস (আইএফইএস), ওয়াশিংটন ডিসি, ইউএসএ। এছাড়াও উক্ত আলোচনার পর বাংলাদেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের তরুণ শিক্ষক ও গবেষকেরা উন্মুক্ত আলোচনায় অংশগ্রহণ করবেন। এছাড়াও আলোচনার শুরুতে স্বাগত বক্তব্য নিয়ে আসবেন দ্যা ইন্টারন্যাশনাল ফাউন্ডেশন ফর ইলেকট্রল সিস্টেমস (আইএফইএস)-এর বাংলাদেশ ও শ্রীলংকার কান্ট্রি ডিরেক্টর সিলিয়া প্যাসিলিনা এবং আইনুল ইসলাম, ন্যাশনাল মডারেটর, সেভ ইয়ুথ-বাংলাদেশ ও সহযোগী অধ্যাপক, রাষ্ট্র বিজ্ঞান বিভাগ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়।

এছাড়াও অননুষ্ঠানে দেশি-বিদেশি গবেষক, অধ্যাপক আর দেশের ১২টি বিশ্ববিদ্যালয়ের চার শতাধিক শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করবেন বলে আয়োজকেরা আশা করছেন।
 
অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় অংশে মূল ওয়ার্কশপটি অনুষ্ঠিত হবে। এখানে শুধু কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের ৮০জন বা তার অধিক শিক্ষার্থী ও তরুণ শিক্ষক এবং সেভ ইয়ুথ-এর কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় চ্যাপ্টারের মডারেটররা অংশ গ্রহণ করবেন।

অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখবেন, দ্যা ইন্টারন্যাশনাল ফাউন্ডেশন ফর ইলেকট্রল সিস্টেমস (আইএফইএস)-এর বাংলাদেশ ও শ্রীলংকার কান্ট্রি ডিরেক্টর সিলিয়া প্যাসিলিনা এবং ওয়ার্কশপটি পরিচালনা করবেন আইনুল ইসলাম, ন্যাশনাল মডারেটর, সেভ ইয়ুথ-বাংলাদেশ ও সহযোগী অধ্যাপক, রাষ্ট্র বিজ্ঞান বিভাগ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়।

About Bangla Gov Jobs

Check Also

নেই চেয়ারম্যান ও সিনিয়র শিক্ষক, পরীক্ষা বর্জন ও আন্দোলন করছে সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগ

বশেমুরবিপ্রবি প্রতিনিধি: প্রতিটি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে হলো উচ্চশিক্ষা অর্জন করা। উচ্চশিক্ষা নিশ্চিতে সবথেকে গুরত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকগণ। তবে এক্ষেত্রে অনেকটা ব্যতিক্রম গোপালগঞ্জের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (বশেমুরবিপ্রবি)। বিশ্ববিদ্যালয়টিতে পর্যাপ্ত শিক্ষক না থাকার কারণে শিক্ষক নিয়োগের দাবিতে আন্দোলন করছে বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ শিক্ষার্থীরা। বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে জানা যায়, বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিটি বিভাগেই রয়েছে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *